Home » ইসরায়েলের পূত্রগণ by এম ইদ্রিস আলী
ইসরায়েলের পূত্রগণ এম ইদ্রিস আলী

ইসরায়েলের পূত্রগণ

এম ইদ্রিস আলী

Published
ISBN :
Hardcover
412 pages
Enter the sum

 About the Book 

ইসরায়েলের পুতরগণ’ সমভবত ইহুদিদের নিয়ে বাংলা ভাষায় পরকাশিত পরথম পূরণাঙগ গরনথ। পাশচাতয ও ইসলামের ইতিহাসে ইহুদিদের অবসথানের গুরুতব এবং সমসাময়িক বিশবের বহু কষেতরে তাদের দৃশযমান অথবা অদৃশয নিয়ামকের ভূমিকা ‘ইহুদি’ শবদটির চারিদিকে রহসযের জাল সৃষটি করেছে।Moreইসরায়েলের পুত্রগণ’ সম্ভবত ইহুদিদের নিয়ে বাংলা ভাষায় প্রকাশিত প্রথম পূর্ণাঙ্গ গ্রন্থ। পাশ্চাত্য ও ইসলামের ইতিহাসে ইহুদিদের অবস্থানের গুরুত্ব এবং সমসাময়িক বিশ্বের বহু ক্ষেত্রে তাদের দৃশ্যমান অথবা অদৃশ্য নিয়ামকের ভূমিকা ‘ইহুদি’ শব্দটির চারিদিকে রহস্যের জাল সৃষ্টি করেছে। তাদের ঐশী গ্রন্থ তৌরিদে ইহুদিগণকে ঈশ্বরের আপনজাতি, অনুগ্রহপ্রাপ্ত জাতি, পবিত্র জাতি, বিশ্বের পুরোহিত জাতি ইত্যাদি বিশেষণে বিশেষায়িত করা হয়েছে। খ্রিস্টান-চার্চের অনুশাসন, ধর্মীয় রচনা ও সাহিত্যে এবং ইসলামী ঐতিহ্যে তাদেরকে বিধাতা-বিবর্জিত, অভিশপ্ত, নির্দয়, সুদখোর, বান্ধবহীন, ঘৃণিত জাতি হিসেবে আখ্যায়িত করা হয়েছে। ইতিহাস জুড়ে দেখা যায় যেখানেই তারা বাস করেছে একমাত্র ভারত ব্যতীত, প্রায় সর্বত্র পুনঃপুন নির্যাতন, বিতাড়ন ও গণহত্যার শিকার হয়েছে, কিন্তু বারবার তারা উঠে দাঁড়িয়েছে। তৌরিদে ঈশ্বরের দেয়া প্রতিশ্রুতি অনুসারে তারা নিশ্চিহ্ন হয়ে যায়নি। এই অনন্য সাধারণ জাতির চার হাজার বছরের ইতিহাস ও উপাখ্যান, বিচিত্র ধর্মীয় আচার-আচরণ, সংঘাত ও বিদ্রোহ, ইতিহাসের নিষ্ঠুরতম গণহত্যার ধ্বংসস্তূপ থেকে পুনরুত্থান এবং তাদের ইতিহাসে শ্রেষ্ঠতম অর্জন ইসরাইল রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠা এ সবই এই গ্রন্থের উপজীব্য। পাশাপাশি সমসাময়িক বিশ্বের জ্ঞান-বিজ্ঞান, শিল্প, সাহিত্য, অর্থনীতি, অর্থ ব্যবস্থা, রাজনীতি, প্রচার-মাধ্যম, বিনোদন ও সমর-শক্তিতে তাদের ঈর্ষণীয় অবস্থানের প্রেক্ষাপট বোধগম্য করে তুলে ধরা হয়েছে।